বেশি ঘুম মানেই শরীর চাঙ্গা!

0

স্কাইনিউজ প্রতিবেদক: ভাল ঘুম কতই না সুখের। কিন্তু ঘুম কম হলে শরীরে যেমন সমস্যা সৃষ্টি হয়, তেমনি বেশি ঘুম হলেও যে সুস্থ থাকবেন, এমনটা নয়।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, প্রতিদিন অন্তত ৭-৯ ঘণ্টা ঘুমোনো প্রয়োজন। তার থেকে কম কিংবা বেশি ঘুম হলেই বিপদ হতে পারে। দেখা দিতে পারে বিভিন্ন শারীরিক সমস্যা। প্রয়োজনের অতিরিক্ত ঘুম হলে সারাদিন ঝিমুনি কিংবা ক্লান্তি ভাব দেখা দিতে পারে। ফলে কাজের দফারফা।

ওই প্রতিবেদন থেকে জানা গিয়েছে, সম্প্রতি কোরিয়ান একদল চিকিৎসক অতিরিক্ত ঘুম নিয়ে বেশ কয়েকজন পুরুষ-মহিলার উপর সমীক্ষা চালিয়েছিলেন। সমীক্ষা থেকে জানা গিয়েছে, বেশিমাত্রায় ঘুমোলে হৃদরোগেও বিভিন্ন সমস্যার সৃষ্টি হয়।

বেশি ঘুমানোর ফলে ওজন মারাত্মক ভাবে বেড়ে যেতে পারে। ওই কোরিয়ান চিকিৎসকদের দাবি, বেশি ঘুমোনোর ফলে ওজন ২৫ কেজি পর্যন্ত বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে!

চিকিৎসকদের মতে, অতিরিক্ত ঘুমোনো আসলে একটি রোগ। হাইপারসমনিয়া নামে এই রোগের ফলে ডায়াবেটিস, স্থূলতা, শরীরের বিভিন্ন অংশে ব্যথা হয়। অনেকে শোয়ার আগে ঘুমোনোর ওষুধ খান। এতেও ঘুম দীর্ঘায়িত হয়ে বিভিন্ন রকম শারীরিক সমস্যার সৃষ্টি হয় বলে জানা গিয়েছে।

ফলে ঘুমোনোর সময়ে সতর্ক থাকুন, বেশি ঘুমানো হলে ক্ষতি হতে পারে আপনারই। তবে, প্রচণ্ড ক্লান্তিকর শারীরিক পরিস্থিতিতে বা আগের দিনে ঘুমের ব্যাঘাত হয়ে থাকলে একদিন বেশি ঘুম হতেই পারে। সেটা ব্যতিক্রম। নিয়মিত ঘুম যেন নিয়ন্ত্রণে থাকে সেটাই খেয়াল রাখতে হবে।

LEAVE A REPLY

nineteen − eighteen =