… বাংলাদেশে মাতৃদুগ্ধ পানের হার কম

0

স্কাইনিউজ প্রতিবেদক: দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে বাংলাদেশের শিশু মাতৃদুগ্ধ পানের সুযোগ  কম পায় বলে জানিয়েছে ইউনিসেফ। সংস্থাটির সর্বশেষ রিপোর্টে এ কথা বলা হয়েছে। আন্তর্জাতিক মা দিবস উপলক্ষে গতকাল (রোববার) এ রিপোর্ট প্রকাশ করা হয়।

রিপোর্টে বলা হয়েছে- বুকের দুধ খাওয়ানোর ক্ষেত্রে দক্ষিণ এশিয়ার মায়েরা সবার থেকে এগিয়ে। তবে এ ক্ষেত্রে বাংলাদেশের মায়েরা প্রতিবেশি দেশগুলোর তুলনায় পিছিয়ে আছে।

এতে উল্লেখ করা হয়- ভুটান, নেপাল ও শ্রীলংকায় ৯৯ শতাংশ এবং আফগানিস্তানে ৯৮ শতাংশ শিশু শৈশবে বুকের দুধ খাওয়ার সুযোগ পায়। বাংলাদেশ ছাড়া এ অঞ্চলের অন্যান্য দেশে এই হার ৯৪ থেকে ৯৭ শতাংশ।

রিপোর্টে বলা হয়েছে- বাংলাদেশে মাত্র ৫১ শতাংশ নবজাতককে জন্মের ১ ঘণ্টার মধ্যে বুকের দুধ খাওয়ানো শুরু করা হয় এবং ৬ মাসের কম বয়সী ৫৫ শতাংশ শিশুকে কেবল বুকের দুধ খাওয়ানো হয়।

ইউনিসেফের ওই প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে- শিশুদের সুস্বাস্থ্য নিয়ে বেড়ে ওঠা এবং মৃত্যুর হার কমাতে জন্মের পর থেকে তাদের ২ বছর এবং সম্ভব হলে তার বেশি সময় বুকের দুধ খাওয়ানো প্রয়োজন। শুধু তাই নয়, দীর্ঘ সময় ধরে শিশুকে বুকের দুধ খাওয়ানো মায়ের স্বাস্থ্যের জন্যও গুরুত্বপূর্ণ। একজন মা এক বছর পর্যন্ত সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়ালে তার স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি ৬ শতাংশ কমে যায়।

 সূত্র : বাসস

 

LEAVE A REPLY

3 × 4 =