বড় দিনে কি আবার আইসিস হামলা? শঙ্কিত প্যারিস

0

প্যারিসে সন্ত্রাসী হানার ক্ষতটা এখনও দগদগে। ইউরোপের বাতাসে এখনও জঙ্গিপনার টাটকা গন্ধ। নতুন করে কোমর কষছে আইসিস। উত্সবের মরশুমে ফের জঙ্গিহানায় কেঁপে উঠবে না তো ইউরোপের মাটি! আশঙ্কার কালো মেঘ ছেয়ে আছে আকাশে। মাথাচাড়া দিচ্ছে একটি আশঙ্কা। বড়দিনের সময়টায় ইউরোপজুড়ে উত্সবের আবহ। মাসভর জমজমাট থাকে ইউরোপের বাজারগুলি। মার্কেটিংয়ে মেতে থাকে আবাল বৃদ্ধ বনিতা। জমজমাট এই সময়টাকেই বেছে নিতে চাইছে আইসিস।

এই আশঙ্কার জেরেই অতিরিক্ত নিরাপত্তার ব্যবস্থা করা হয়েছে ইউরোপের অন্যতম জমজমাট এবং পরিচিত ন্যুরেমবার্গের ক্রিসমাস মার্কেটে। মার্কেটজুড়ে নিরাপত্তার কড়া বেষ্টনী।

গত বছরের তুলনায় নিরাপত্তা আরও আঁটোসাঁটো করা হয়েছে। আরও বেশি অফিসার নিয়োগ করা হয়েছে। সাদা পোশাকে অনেক বেশি অফিসার থাকবেন। মার্কেটের প্রবেশপথে পুলিসের অনেকগুলি গাড়ি থাকবে। সম্ভাব্য হামলার কথা ভেবে নিরাপত্তা আরও জোরদার করা হয়েছে।

নিরাপত্তা বাহিনীর সতর্কতা সত্ত্বেও উত্সাহের ঢল মানুষের মধ্যে। সান্তার বেশে রাস্তায় বেরিয়ে পড়েছেন অনেকেই। কেউ তো চার্চের ব্যালকনি থেকে কবিতাও আবৃত্তি করছেন। ইউরোপের নানা প্রান্ত থেকে মানুষ আসছেন তাঁদের পছন্দের জিনিসপত্র কিনতে। কাঠের খেলনা, মিষ্টি কিনে বাড়ি ফিরছেন তাঁরা।

উত্সবের রঙে এখন রঙিন ন্যুরেমবার্গের বিখ্যাত এই মার্কেট। জার্মান সসেজ বা ওয়াইনের ম ম করা গন্ধে জার্মানি এখন টগবগ করে ফুটছে। তাঁদের দেখে কে বলবে, আইসিসি হানার আশঙ্কা ঘিরে রয়েছে গোটা ইউরোপকে।

LEAVE A REPLY

11 − six =