জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় : হয়ে গেলো সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের বনভোজন

0

স্কাই নিউজ প্রতিবেদক: মুন্সিগঞ্জের পলাশপুর “নিউ ঢাকা সিটি ইন” রিসোর্ট।সমাজ বিজ্ঞান বিভাগ ১৯৯৩-৯৪ শিক্ষাবর্ষের বনভোজন। শনিবার ছিল সেই মাহেন্দ্রক্ষণ। দীর্ঘ ১৮ বছর পর বন্ধু পরিবার ও সন্তানের সঙ্গে পরিচয়।  যেন যোগ হয়েছিল ভিন্নমাত্রা। সে এক নস্টালজিক সময়।

বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে বন্ধুত্বের পরিসর অনেক বড়।কিন্তু বনভোজনে আগত বন্ধুদের আড্ডা ,গল্প, হইচই যেন এক পারিবারিক মিলন মেলায় পরিনত হয়েছিল । দীর্ঘদিন পর বন্ধুরা বিভিন্ন জেলা,উপজেলা, রাজধানী ও সুদুর প্রবাস থেকে শত ব্যস্ততার মাঝেও ছুটে আসে। সে এক অন্যরকম ভালবাসা।

সকাল ৮টা থেকে শুরু করে সন্ধ্যা পর্যন্ত খাওয়া দাওয়া, যম্পেশ আড্ডা, বাচ্চাদের ছুটোছুটি আর ফটোশেসন ছিল চোখে পড়ার মত।

বনভোজনে অংশগ্রহণকারী অনেকে বলেন- ১৮ বছর পরের বন্ধুমিলনীতে যারা,  ইচ্ছাথাকা সত্বেও যোগ দিতে পারেনি , তাদের প্রতি ভালোবাসা রইল এবং আগামী অনুষ্ঠান গুলিতে তাদের সঙ্গে পাবো।সকল বন্ধুদের পরিশ্রম বা ইতিবাচক মনেভাব কাজটিকে অনেক সহজ করেছে।

পরিশ্রমী বন্ধুদের মধ্যে শিল্পী, মুশু,খালেদ,হাজী আতিক,আনোয়ার, হান্নান, বিজলী,রোকন,কবির,কাজল অশোক,টুটুল, সোহাগ,আকরাম,রইস, কামরুল, জুয়েল, শাহীন।সন্জয়, সোহেল, শাহীন,মোতালেব, রিয়াজ, মুহিব, জীবন, হুমায়ুন,আমীন মাহাবুব,শম্পা, আখি ও অনেকে ইতিবাচক মনোভাব ও পরামর্শ দিয়ে বনভোজন ২০১৮ সফল করেছে।

 

LEAVE A REPLY

11 + 6 =